Uttar Pradesh: ৬৩ শিশু মৃত্যুর ঘটনায় চাকরি গেল চিকিৎসক কাফিলের

বাবা রাঘবদাস মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে এক সপ্তাহের মধ্যে অক্সিজেনের অভাবে ৬৩টি শিশুর মৃত্যু

424
Dr Kafil Khan

News Desk, New Delhi: শেষ পর্যন্ত যোগী আদিত্যনাথ (yogi adityanath)সরকারের চরম হঠকারিতার শিকার হলেন চিকিৎসক কাফিল খান (kafil khan)। শিশু মৃত্যুর ঘটনায় উত্তরপ্রদেশের বিআরডি (brd medical college) হাসপাতালের চিকিৎসক কাফিলকে বরখাস্ত করল যোগী আদিত্যনাথ সরকার।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালে উত্তরপ্রদেশে বাবা রাঘবদাস মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে এক সপ্তাহের মধ্যে অক্সিজেনের অভাবে ৬৩টি শিশুর মৃত্যু হয়েছিল। ওই হাসপাতলে যে বেসরকারি সংস্থা অক্সিজেন সিলিন্ডার সরবরাহ করত তারা জানিয়েছিল, সরকার বকেয়া টাকা না দিলে তারা আর অক্সিজেন (oxyzen) সিলিন্ডার সরবরাহ করবেন না। টাকা না পাওয়ায় যথারীতি ওই সংস্থা অক্সিজেন সিলিন্ডার পাঠানো বন্ধ করে দেয়।

এ ঘটনায় অক্সিজেনের অভাবেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে ৬০টি সদ্যোজাত শিশু (newborn baby)। কিন্তু ওই সময়ে কাফিল খান এবং তাঁর কয়েকজন সহকর্মী কার্যত প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে বহু শিশুকে প্রাণে বাঁচিয়েছিলেন। কিন্তু প্রতিহিংসা পরায়ণ যোগী সরকার সেই কাফিলকেই বরখাস্ত করল।

একসঙ্গে এতগুলি শিশুর মৃত্যুতে রাজ্য তথা দেশ জুড়ে প্রবল সমালোচনা শুরু হয়। মুখ্যমন্ত্রী যোগী সব ঘটনার দায় নিজের সরকারের ঘাড় থেকে ঝেড়ে ফেলতে চিকিৎসক কাফিল খানকে দায়ী করেন। শুধু তাই নয়, কাফিলকে সাসপেন্ড করার পাশাপাশি কী কারণে এতগুলি শিশুর মৃত্যু হল তা জানতে একটি উচ্চ পর্যায়ের তদন্ত কমিটি গঠনের নির্দেশ দেন।

ওই কমিটি তার তদন্ত শেষ করার পর এক রিপোর্টে জানিয়েছে, ওই অভিশপ্ত ঘটনার জন্য চিকিৎসক কাফিল খানই দায়ী। চিকিৎসকের গাফিলতিতেই ৬০টি শিশু অকারণে প্রাণ হারিয়েছে। ওই ঘটনায় কাফিলকে অভিযুক্ত করে তাঁকে চাকরি থেকে বরখাস্ত করার সুপারিশ করে তদন্ত কমিটি। যোগী সরকার কমিটির সুপারিশে মেনে নিল।

ওই ঘটনার পরেই কাফিল খানকে সাসপেন্ড করেছিল যোগী সরকার এবার তাকে পাকাপাকি বরখাস্ত করার সিদ্ধান্ত জানিয়ে দেওয়া হল।