""
Tuesday, September 27, 2022
Homeদেশের দশদিকরাফায়েল বিমান কেনায় দুর্নীতি হয়েছে, অভিযোগ ফরাসি সংবাদ সংস্থা মিডিয়াপার্টের

Latest Posts

রাফায়েল বিমান কেনায় দুর্নীতি হয়েছে, অভিযোগ ফরাসি সংবাদ সংস্থা মিডিয়াপার্টের

রাফায়েল চুক্তি বিতর্ক যেন কিছুতেই মিটছে না

- Advertisement -

News Desk: রাফায়েল চুক্তি বিতর্ক যেন কিছুতেই মিটছে না। ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের আগে রাফায়েল (Rafale) চুক্তি নিয়ে রাজনৈতিক বাজার সরগরম করেছিল বিরোধীরা। যদিও তার প্রভাব ভোটবাক্সে পড়েনি। এমনকী, সুপ্রিম কোর্টে গিয়েও খালি হাতে ফিরতে হয়েছিল বিরোধীদের। কিন্তু রবিবার এক চাঞ্চল্যকর খবর প্রকাশ হয়েছে ফরাসি সংবাদ সংস্থায়।

ফ্রান্সের (france) পোর্টাল মিডিয়াপার্ট (media part) এই সংক্রান্ত নতুন কিছু রসিদ সামনে এনেছে। মিডিয়াপার্টের দাবি, এই সমস্ত রসিদ থেকেই রাফায়েল চুক্তির ক্ষেত্রে যে দুর্নীতি হয়েছিল তার প্রমাণ মিলতে পারে। রবিবার বেশ কিছু ভুয়ো রসিদ প্রকাশ করেছে এই পোর্টালটি। মিডিয়াপার্টের দাবি, ফরাসি বিমান প্রস্তুতকারী সংস্থা দাসল্ট এভিয়েশন ভারত সরকারের সঙ্গে এই চুক্তি করতে দালালদের ৭.৫ মিলিয়ন ইউরো ঘুষ দিয়েছিল।

- Advertisement -

এই ঘুষ দেওয়ার যাবতীয় তথ্য প্রমাণ দেখতে পেয়েছিলেন ভারতীয় তদন্তকারীরা। কিন্তু তারপরেও তাঁরা বিষয়টি নিয়ে আর নাড়াঘাটা করেননি। বিভিন্ন তথ্য প্রমাণ থেকে ভারতীয় তদন্তকারী সংস্থা সিবিআই এবং ইডি ২০১৮ সালে জানতে পেরেছিল যে, রাফাল কাণ্ডে সুষেন গুপ্ত (susen gupta) নামে এক ব্যক্তি ঘুষ পেয়েছিলেন। কিন্তু সব জানার পরেও তাঁরা বিষয়টি নিয়ে আর আগাননি।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের এপ্রিল মাসেও এই সংবাদ সংস্থাটি রাফায়েল কেলেঙ্কারিতে ঘুষের অভিযোগ করেছিল। এসময় মিডিয়াপার্ট অভিযোগ করেছিল, দাসল্ট ও তাদের সহযোগী সংস্থা থেলেস সুষেন গুপ্তকে কোটি কোটি টাকা কমিশন দিয়েছে। শুধুমাত্র এই চুক্তি পাওয়ার জন্যই তারা ওই কমিশন দিয়েছে। ২০০৪ থেকে ২০১৩ সালের মধ্যে এই টাকা দেওয়া হয়েছে বলে মিডিয়াপার্টের অভিযোগ। একই সঙ্গে ওই সংবাদ সংস্থা জানায়, সিঙ্গাপুরে ইনডেভ (indev) নামে একটি ভুয়ো সংস্থার মাধ্যমে টাকা লেনদেন হয়েছে। যদিও মিডিয়াপার্টের এই বক্তব্য নিয়ে দাসল্ট এভিয়েশন কোনও প্রতিক্রিয়া জানায়নি। প্রতিক্রিয়া মেলেনি ফরাসি সরকারের দিক থেকেও।

এই অত্যাধুনিক যুদ্ধবিমান রাফায়েল নিয়ে ভারতে প্রথম থেকেই শুরু হয়েছিল রাজনৈতিক বিতর্ক। কংগ্রেসের অভিযোগ মোদি সরকার অকারণে অনেক বেশি অর্থ দিয়ে রাফায়েল বিমান কিনছে। অন্যদিকে বিজেপি কংগ্রেসের এই অভিযোগ উড়িয়ে দেয়। বিজেপি পাল্টা বলে, কংগ্রেস কখনওই রাফাল নিয়ে কোনও চুক্তি চূড়ান্ত করেনি। তাই ঠিক কত টাকায় ফ্রান্সের কাছ থেকে এই বিমান পাওয়া যেত সে ব্যাপারে কংগ্রেসের কোন বক্তব্যই ঠিক নয়। উল্লেখ্য, নরেন্দ্র মোদি সরকার ফ্রান্সের কাছ থেকে ৩৬ টি অত্যাধুনিক রাফাল যুদ্ধবিমান কেনার সিদ্ধান্ত জন্য চুক্তি করেছিল।

- Advertisement -

Video News

Top News Headlines

Latest Posts

Don't Miss