Kashmir: পাকিস্তানের জয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করায় দেশদ্রোহের মামলা কাশ্মীরি পড়ুয়াদের বিরুদ্ধে

438
Students, College Management Charged With UAPA

National Desk: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ক্রিকেট ম্যাচে ভারতকে হারিয়ে দিয়েছিল পাকিস্তান। বিশ্বকাপ ক্রিকেটের মঞ্চে এই প্রথম পাকিস্তানের জয় নিয়ে উল্লাস প্রকাশ করেছিলেন জম্মু-কাশ্মীরের কিছু চিকিৎসক পড়ুয়া। সকলকে অবাক করে দিয়ে ওই হবু চিকিৎসকদের বিরুদ্ধেই ইউএপিএ বা বেআইনি কার্যকলাপ প্রতিরোধ দমন আইনে মামলা দায়ের হল। কাশ্মীরের দুটি মেডিক্যাল কলেজের ছাত্রদের বিরুদ্ধে এই মামলা দায়ের হয়েছে।

জানা গিয়েছে, কাশ্মীর পুলিশ দুটি আলাদা ঘটনার প্রেক্ষিতে দেশদ্রোহীতার দুটি পৃথক মামলা দায়ের করেছে। তবে এই মামলাতে নির্দিষ্ট করে কোনও পড়ুয়ার নাম উল্লেখ করা হয়নি। ওই দুই মেডিক্যাল কলেজের হস্টেলে থাকা সব ছাত্রের নামেই মামলা দায়ের হয়েছে। পুলিশ ইতিমধ্যেই ওই ছাত্রদের চিহ্নিত করার কাজ শুরু করেছে। শ্রীনগরের সরকারি মেডিকেল কলেজ এবং সৌরা অঞ্চলের এসকেআইএমএস মেডিক্যাল কলেজের হোস্টেলে রবিবার চিকিৎসক পড়ুয়ারা টেলিভিশনে ভারত-পাকিস্তানের খেলা দেখছিলেন। ওই খেলায় শেষ পর্যন্ত পর্যুদস্ত হয় ভারত। পাকিস্তানের জয়ের পর আনন্দে মেতে ওঠে ওই দুই হস্টেলের আবাসিকরা। অভিযোগ, শুধু উল্লাস করাই নয়, ওই ছাত্ররা ভারত বিরোধী স্লোগানও দেয়।

এই মামলায় জড়িত হিসেবে যে সমস্ত ছাত্রকে চিহ্নিত করা হবে একই সঙ্গে এই মামলায় আর যাদের নাম যোগ হবে ভবিষ্যতে তারা কখনও ভারত সরকার এবং জম্মু-কাশ্মীর সরকারের কোনও সরকারি চিকিৎসক বা অন্য কোনও পদে চাকরির আবেদন করতে পারবেন না।

উল্লেখ্য, এর আগে খেলার দিন পাঞ্জাবে সাংরুর ভাই গুরুদাস ইনস্টিটিউট অফ ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড টেকনোলজি কলেজেও উত্তেজনা ছড়িয়ে ছিল। সেখানেও ভারত-পাক ম্যাচ শেষ হওয়ার পর কিছু কাশ্মীরি ছাত্রের উপর হামলা হয়েছিল। হামলাকারীরা ছিল উত্তরপ্রদেশ ও বিহারের পড়ুয়া। তবে ওই হামলার ঘটনায় কলেজ কর্তৃপক্ষ আক্রান্তদের আশ্বাস দিয়েছে, তারা পুরো ঘটনাটি গুরুত্ব দিয়েই খতিয়ে দেখবে। ওই হামলার ঘটনায় ছয়জন কাশ্মীরি ছাত্র জখম হয়েছিলেন।