KMC Election: পুরভোট লুঠ রুখতে শূন্য বামেদের বিক্ষোভেই ভরসা বিরোধী দল বিজেপির

380
Kmc election main opposition bjp facing masive organizational

News Desk: পুরভোটেই কি হাল ছাড়ল বিরোধী দল? রাজনৈতিক মহলে বড় হয়েছে এই প্রশ্ন। নির্বাচনের (KMC Election) সকাল থেকে স্পষ্ট ১৪১টি ওয়ার্ডের বহু বুথে এজেন্টই দিতে পারেনি বিজেপি। তারাই রাজ্য প্রধান বিরোধী দল। সত্তরের বেশি বিধায়ক। দলের মধ্যেই গুঞ্জন সংগঠন ভেঙ্গে পড়ছে তা স্পষ্ট।

বিজেপির অন্দরমহলের হিসেব দরকার ছিল কমপক্ষে ৯ হাজার কর্মী। মেলেনি কিছুই। পুরনিগমের ১৪৪টি ওয়ার্ডে মোট বুথের সংখ্যা ৪ হাজার ৯৫৯টি। ১ জন এজেন্ট ও রিলিভার মিলিয়ে মোট ৯ হাজার ৯১৮ জন বুথ কর্মী প্রয়োজন বিজেপির। তার অর্ধেক বুথ এজেন্ট জোগাড় করতে পারেনি বিরোধী দল।

অপর দিকে বিধানসভায় শূন্য হওয়া সিপিআইএমের এজেন্ট দেয় বেশিরভাগ বুথে। কংগ্রেসেরও এজেন্ট বিজেপির তুলনায় ভালো।

তাৎপর্যপূর্ণ, পুরনিগম ভোটে আক্রান্ত হওয়ার পর বিজেপি বিক্ষোভ দেখাতে গিয়েও নিজের শক্তি পাচ্ছে না বলে দলেরই মধ্যে প্রশ্ন। এমনকি দেখা যাচ্ছে বামফ্রন্ট ও কংগ্রেসের বিক্ষোভে জমি খুঁজে নিতে।

বিজেপির তরফে বারবার ভোট লুঠ, প্রার্থীর উপর হামলার অভিযোগ করা হয়েছে। কিন্তু নেতৃত্বের দেখা নেই বলে কর্মীদের অভিযোগ। সূত্রের খবর, পুরভোটের পর আরও ধসের কবলে পড়ছে বিজেপি।

বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর গরম ভাষণ ছিল ফাঁকা বুলি, এমনই অ়ভিযোগ করছেন দলীয় কর্মীরা। তবে বিজেপির দাবি, নেতৃত্ব বিক্ষোভে আছেন।