""
Tuesday, September 27, 2022
Homeস্পোর্টস-স্পটরোনাল্ডোকে ছাপিয়ে নতুন রেকর্ড মেসি’র

Latest Posts

রোনাল্ডোকে ছাপিয়ে নতুন রেকর্ড মেসি’র

- Advertisement -

রিও ডি জেনেইরো: আর্জেন্তিনা তথা জাতীয় দলের জার্সি গায়ে প্রখম খেতাব জয়ে মরিয়া লিওনেল মেসি৷ ক্লাব ফুটবলের ‘বেতাজ বাদশা’ এখনও দেশকে কোনও বড় ট্রফি দিতে পারেননি৷ এবারের কোপা আমেরিকায় ‘বদনাম’ ঘোচানোর দারুণ সুযোগ৷ ইকুয়েডরের বিরুদ্ধে কোয়ার্টার ফাইনালে অপ্রতিরোধ্য ফর্মে ছিলেন ‘ফুটবলের রাজপুত্র’। ফ্রি-কিক থেকে দুরন্ত গোলের পাশাপাশি দলের অপর দু’টি গোলেও অবদান ছিল মেসির৷ ক্যাপ্টেনের দুরন্ত পারফরম্যান্সে ইকুয়েডরকে ৩-০ হারিয়ে কোপার সেমিফাইনালে উঠেছে আর্জেন্তিনা৷

মেসির বিরুদ্ধে বড় অভিযোগ, আর্জেন্তিনা হয়ে বড় টুর্নামেন্টের নক-আউট পর্বে জ্বলে উঠতে পারেন না তিনি! কিন্তু ইকুয়েডরের বিরুদ্ধে কোপার কোয়ার্টার ফাইনালে গোল করে ও করিয়ে তা ভুল প্রমাণ করলেন মেসি৷ রদ্রিগো দি পল এবং লাউতারো মার্তিনেসরের গোলে অ্যাসিস্ট করার পাশাপাশি ম্যাচের অতিরিক্ত সময়ে দুর্দান্ত ফ্রি-কিকে গোল করে সমর্থকদের মন কেড়েছেন আর্জেন্তাইন অধিনায়ক৷

- Advertisement -

আর্জেন্তিনাকে এখনও ট্রফি জেতাতে পারেননি সত্যি। তবে দিয়েগো মারাদোনার পর মেসির ওপরই বেশি ভরসা করেছেন আর্জেন্তাইন সমর্থকরা৷ বিশ্বকাপ কিংবা কোপা আমেরিকার বড় মঞ্চে মেসি আর্জেন্তিনার হয়ে কিছু করতে পারেন না, এটা মেনে নেওয়া কঠিন৷ প্রশ্নটা অবান্তর মনে হবে, রেকর্ডে চোখ বোলালে। বিশ্বকাপ আর মহাদেশীয় চ্যাম্পিয়নশিপ৷ দুই বড় আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে এখন সবচেয়ে বেশি গোলে অবদানের রেকর্ড মেসির দখলে। ইকুয়েডরের বিরুদ্ধে গোল করে ও করিয়ে ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি রোনাল্ডো নাজারিওকে টপকে গিয়েছেন মেসি।

এখন পর্যন্ত চারটি বিশ্বকাপ খেললেও নক-আউট পর্বে ৮ ম্যাচে মাঠে নেমেও কোনও গোল করতে পারেননি মেসি৷ গোল করিয়েছেন শুধু তিনটি। আর এবারের কোপা আমেরিকার কোয়ার্টার ফাইনালে ইকুয়েডরের বিরুদ্ধে ফ্রি-কিক থেকে চোখধাঁধানো গোল করার পাশাপাশি, দলের বাকি দুই গোলও সহায়তা করেছেন তিনি৷ ইকুয়েডরের বিরুদ্ধে ম্যাচে নামার আগে ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি রোনাল্ডোর সঙ্গে বড় টুর্নামেন্টের নক-আউট পর্বে গোলে অবদানের রেকর্ডের শীর্ষস্থানে ভাগ বসিয়েছিলেন মেসি। দু’জনেরই গোলে অবদান ছিল ১৭টি। আর ইকুয়েড-আর্জেন্তিনা ম্যাচের পর নক-আউট পর্বে মেসির গোলে অবদান ২০টি৷ যার মধ্যে তিনি গোল করেছেন ৫টি ও করিয়েছেন ১৫টি। রোনাল্ডো নাজারিও-র ১৭ গোলে অবদানের মধ্যে গোল করেছেন ১৩টি ও করিয়েছেন ৪টি।

এছাড়াও ব্রাজিলের সর্বকালের অন্যতম সেরা ফুটবলার রোনাল্ডোকে ছাপিয়ে গিয়েছেন মেসি। ইকুয়েডরের বিরুদ্ধে নিজে গোল করে ও সতীর্থদের দিয়ে গোল করিয়ে প্রতিযোগিতামূলক টুর্নামেন্টে সর্বাধিক গোলে অবদান রাখা ‘দ্যা ফেনোমেনন’ খ্যাত ব্রাজিলিয়ান রোনাল্ডোর ৪০ গোলের রেকর্ডে টপকে গিয়েছেন ছ’বারের বর্ষসেরা এই ফুটবলার। এতদিন বিশ্বকাপ, কোপা আমেরিকা ও ফিফা কনফাডেরশন্স কাপ মিলিয়ে এতদিন ৩৭ ম্যাচে ৪০ গোল করে এই তালিকায় শীর্ষে ছিলেন রোনাল্ডো৷ দু’টি বিশ্বকাপে গোল্ডেন বল ও গোল্ডেন বুট জয়ী ইতিহাসের অন্যতম সেরা এই স্ট্রাইকার বিশ্বকাপে ১৯ ম্যাচে ১৫ গোল করার পাশাপাশি সতীর্থদের দিয়ে আরও ৫টি গোল করেছেন। এছাড়াও লাতিন আমেরিকার শ্রেষ্ঠত্বের আসর কোপা আমেরিকায় ১০টি গোল করার পাশাপাশি অ্যাসিস্ট করেছেন ৪টি। কনফাডেরশন্স কাপে অর্থাৎ বিশ্বকাপের প্রস্তুতিমূলক টুর্নামেন্টে ৫ ম্যাচে ৪টি গোল করে ও সতীর্থদের দিয়ে ২টি গোল করিয়েছেন।

আর ইকুয়েডর ম্যাচের পর মেসি বড় টুর্নামেন্টে ৫১ ম্যাচে ৪২ গোলে অবদান রাখলেন। আর্জেন্তিনার হয়ে ফিফা ফুটবল বিশ্বকাপ ও কোপা আমেরিকায় ১৯ গোলের পাশাপাশি সতীর্থদের দিয়ে ২৩টি গোল করিয়েছেন। আকাশী নীল জার্সি গায়ে বিশ্বকাপে ১৯ ম্যাচে ৬টি গোলের পাশাপাশি ৭টি গোলে অ্যাসিস্ট করেছেন৷ কোপা আমেরিকায় ৩২ ম্যাচে ১৩ গোলের পাশাপাশি আরও ১৬ গোলেও সহায়তা করেছেন আর্জেন্তাইন তারকা ফুটবলার৷

- Advertisement -

Video News

Top News Headlines

Latest Posts

Don't Miss