তৃষ্ণার্ত বাঙালি পুর নির্বাচনের আগেই সস্তার দিশি-বিলিতি মদে মজবে

কর্মসংস্থান না হতে পারে, কিন্তু মদে কমতি নেই

601
New Liquor price hits municipal election politics in west bengal

News Desk: শুকিয়ে আসা জিভের ডগায় সড়াত করে শব্দ তোলা কঠিন। তবে লোভনীয় বিষয়ে জল এমনিই চলে আসে। রাজ্যে কমেছে মদের দাম। আপাত দৃষ্টিতে মদপ্রেমীদের জন্য বড্ড সুখবর। তবে এর পিছনেও রাজনৈতিক ‘উদ্দেশ্য’ দেখছেন অনেকেই। কলকাতা ও হওড়া পুর নিগম ভোটের আগেই কমিয়ে কিছুটা ‘সহানুভূতিশীল’ হওয়ার চেষ্টা সরকারের বলে মনে করছেন মদাশক্ত অনেকেই।

আপাতত রাজ্যে কমছে ভারতে তৈরি বিলিতি মদের দাম। কম দামে বিক্রি হচ্ছে হুইস্কি, বিয়ার এবং রাম। মদের দাম কমেছে এটাই বিরাট সুখবর সুরাপ্রেমীদের কাছে। মঙ্গলবার রাত থেকেই কমল মদের মূল্য।

বোতল বোতল মদ উড়ে যাওয়ার পালা শুরু হচ্ছে বুধবার থেকেই। দোকানে দোকানে ভিড় জমবে। আবগারি বিভাগ সূত্রে খবর, আগামী কয়েকদিন কোনও ডিলারকেই নতুন করে বিলিতি মদ সরবরাহ করা হবে না। পুরনো স্টক মদের বোতলে নতুন দাম ফেলা হবে।

New Liquor price hits municipal election politics in west bengal

তবে বিলিতি মদের সঙ্গে টেক্কা দিতে রাজ্যে আসছে বিশেষ পরিচিত দিশি মদের কূলীন শিরোপা পাওয়া মহুয়ার মদ ‘মহুল’। ৩০০ মিলিলিটার বোতলের দাম মাত্র ২৮ টাকা।

মহুয়ার মদের সুনাম আছে বাজারে। জঙ্গলমহল, আদিবাসী জনজীবনের এই মদ বাজারজাত করে বিশেষ লাভের মুখ দেখতে চলেছে তৃণমূল সরকার এমনই কটাক্ষ বিরোধীদের। অভিযোগ, বেকারত্ব ভোলাতে মদেই জোর মমতা সরকারের। তবে রাজ্য সরকারের যুক্তি, চোলাই মদের বেআইনি বিক্রি বন্ধ করার জন্য এই পদক্ষেপ।

এর মাঝে পরপর চলে আসবে পুর নির্বাচনের একেকটি পর্ব। মহানগর ছাড়িয়ে মফস্বলের পুরসভাগুলিতেও ভোটের বাজনা বাজবে। বিশ্লেষণে উঠে আসছে, একাধিক সরকারি প্রকল্পে অর্থ বরাদ্দ করতে হিমশিম অবস্থায় অর্থ দফতর। মদেই মিলবে মুক্তি। কোষাগার ভরবে অচিরেই। নির্বাচনের সময় এটি বড় স্বস্তি সরকারের কাছে। অভিযোগ শিল্পে কর্মসংস্থান না হতে পারে, তবে মদে কমতি করবে না সরকার।

(প্রতিকি ফাইল ছবি)