TET 2021 exam: টেট পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁসে বাতিল হয়ে গেল শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা

513
UPTET 2021 exam

নিউজ ডেস্ক, লখনউ: শিক্ষক নিয়োগের জন্য রবিবার হওয়ার কথা ছিল টেট (UP TET 2021 exam) পরীক্ষা। কিন্তু পরীক্ষার আগেই ফাঁস হয়ে গেল প্রশ্নপত্র। ঘটনার জেরে তুমুল অশান্তি সৃষ্টি হল রাজ্যজুড়ে। শেষ পর্যন্ত বাতিল (cancel) করে দেওয়া হল টেট পরীক্ষা। এই অবাক করা কাণ্ড ঘটেছে বিজেপি শাসিত উত্তরপ্রদেশে (Uttar Pradesh)।

এদিন সকালে বেশ কয়েক লাখ হবু শিক্ষক সরকারের শিক্ষক নিয়োগের টেট পরীক্ষা দিতে নিজেদের পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে যান। কিন্তু পরীক্ষা শুরুর আগেই খবর রটে যায় যে, হোয়াটস অ্যাপে (WhatsApp) টেট পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁস হয়ে গিয়েছে। বেশকিছু পরীক্ষার্থী মোবাইলে সেই পরীক্ষার প্রশ্নপত্রও পেয়ে যান। তাই বিষয়টি যে গুজব তা নয়। প্রশ্নপত্র ফাঁস হওয়ার কারণে সঙ্গে সঙ্গেই পরীক্ষা বাতিল করার সিদ্ধান্ত নেয় যোগী সরকার। প্রশ্নপত্র ফাঁসের ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে স্পেশাল টাস্কফোর্স ইতিমধ্যেই তিন জনকে গ্রেফতার করেছে।

রবিবার দুই অর্ধে টেট পরীক্ষা হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু প্রশ্নপত্র ফাঁস হওয়ার কারণে দুটি পরীক্ষাই বাতিল করে দেওয়া হয়। পরীক্ষা বাতিলের এই খবরে যথারীতি চরম সমালোচনার মুখে পড়েছে যোগী আদিত্যনাথ সরকার। বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলির অভিযোগ, যোগী আদিত্যনাথ সরকার বিধানসভা নির্বাচনের আগে শিক্ষক নিয়োগের ভান করছে। কিন্তু যোগী সরকার মূলত বিজেপির লোকজনকেই চাকরি দিতে চায়। সে কারণেই তারা নিজেদের লোকজনকে আগে থাকতেই প্রশ্নপত্র পাঠিয়ে দিয়েছিল। কিন্তু কোনওভাবে বিষয়টি প্রকাশ্যে চলে আসে। বিরোধীরা প্রশ্নপত্র ফাঁস হওয়ার যথাযথ তদন্তের দাবি তুলেছে।

বিরোধীদের অভিযোগ রাজ্যে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতির যে কি হাল এ ঘটনায় তারই প্রমাণ। রাজ্যের হাজার হাজার কর্মপ্রার্থীর ভবিষ্যৎ নিয়ে ছিনিমিনি খেলছে বিজেপি সরকার।

অন্যদিকে রাজ্যের এডিজি (আইন-শৃঙ্খলা) প্রশান্ত কুমার জানিয়েছেন, ডিসেম্বর মাসেই নতুন করে টেস্ট পরীক্ষা নেওয়া হবে। খুব শীঘ্রই পরীক্ষার নির্দিষ্ট দিন, তারিখ ও সময় জানিয়ে দেওয়া হবে। এদিন প্রশ্নপত্র ফাঁস হয়ে যাওয়ার খবর পেতেই সক্রিয় হয়ে ওঠে স্পেশাল টাস্কফোর্স। বেশ কয়েকটি জায়গায় হানা দিয়ে তারা প্রয়াগরাজ এবং পশ্চিম উত্তরপ্রদেশ থেকে তিন যুবককে গ্রেফতার করেছে। এই পরীক্ষার আয়োজক সংস্থাও এসটিএফের সন্দেহের তালিকায় রয়েছে। নতুন করে পরীক্ষা নেওয়া হলে এই সংস্থাকে পরীক্ষা আয়োজনের দায়িত্ব আর দেওয়া হবে না বলেই সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। টেট পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁসের বিষয়টি নিয়ে পূর্ণাঙ্গ তদন্তের আশ্বাস দিয়েছেন রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী সতীশ দ্বিবেদী।