""
Sunday, October 2, 2022
Homeদেশের দশদিকদেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধির জন্য মুসলিমদের দায়ী করা উচিত নয়: মণিশঙ্কর আইয়ার

Latest Posts

দেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধির জন্য মুসলিমদের দায়ী করা উচিত নয়: মণিশঙ্কর আইয়ার

- Advertisement -

News Desk, New Delhi: মুঘলরা কখনও ধর্মের নামে নৃশংসতা করেনি। তারা এদেশে এসে আমাদের সংস্কৃতিকেই গ্রহণ করেছিল। মুঘল সম্রাট আকবরকে (akbar) আমরা নিজেদের মানুষ বলেই মনে করি। সে কারণেই আমরা কখনও আকবরের নামে থাকা রাস্তার নাম পরিবর্তন করে মহারানা প্রতাপের (maharana pratap) নামে করার কথা ভাবিনি।

একই সঙ্গে এই প্রবীণ কংগ্রেস নেতা জানালেন দেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধির জন্য কখনওই মুসলিম সম্প্রদায় দায়ী নয়। এক অনুষ্ঠানে এই মন্তব্য করলেন কংগ্রেস নেতা মণিশঙ্কর আইয়ার (manishankar aiyar) যথারীতি মণিশঙ্করের এই মন্তব্যে তীব্র রাজনৈতিক বিতর্ক শুরু হয়েছে।

- Advertisement -

এক অনুষ্ঠানে এই কংগ্রেস নেতা মুঘল সাম্রাজ্যের ভূয়শী প্রশংসা করেন। মণিশঙ্কর বলেন, ভারত এমন একটি দেশ যেখানে মুসলমানরা এসে দীর্ঘদিন আধিপত্য করে গিয়েছে। কিন্তু ভারত কখনও মুসলিম দেশ হয়ে ওঠেনি। মুঘল ও ব্রিটিশদের (british) মধ্যে সবচেয়ে বড় পার্থক্য হল এই যে, মুঘলরা ভারতকে নিজেদের দেশ বলেই মনে করত। কিন্তু ব্রিটিশরা কখনওই তা করতো না। প্রথম মুঘল (mughal) সম্রাট বাবরের (babar) প্রশংসা করে মণিশঙ্কর বলেন, বাবর তাঁর ছেলে হুমায়ুনকে (humayun) একটি চিঠিতে জানিয়েছিলেন, তিনি যেন কখনও ভারতের মানুষের ধর্মের উপর হস্তক্ষেপ না করেন। সে কারণেই আকবরের শাসনকালে ভারতে ধর্মের কোনও বৈষম্য ছিল না। ধর্মের নামে মুঘলরা কখনও নৃশংসতা চালায়নি।

Mani Shankar Aiyar

দেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধির জন্য মুসলিমদের কখনও দায়ী করা যায় না বলেও মণিশঙ্কর মন্তব্য করেন। এ ব্যাপারে তিনি রীতিমতো পরিসংখ্যান দিয়ে বলেন, ১৮৭২ সালে দেশে ৭২ শতাংশ হিন্দু এবং ২৪ শতাংশ মুসলিম ছিলেন। এই অনুপাতটা আজও প্রায় একই রয়ে গিয়েছে। তাই দেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধির জন্য মুসলিমদের দিকে আঙুল তোলা একেবারেই ঠিক নয়।

<

p style=”text-align: justify;”>একই সঙ্গে বিজেপিকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করেন মণিশঙ্কর। তিনি বলেন, বর্তমানে কেন্দ্র ক্ষমতাসীন দল শুধুমাত্র দেশের ৮০ শতাংশ মানুষের কথা ভাবে। কারণ তাঁরা মনে করেন এই ৮০ শতাংশ মানুষই প্রকৃত ভারতীয়। বাকিরা এদেশের কেউ নয়। তাই ভারতের উন্নয়নেও তাদের কোনও ভূমিকা নেই। স্বাভাবিকভাবেই তাদের কথা ভাবার দায়ও ভারতের নয়। স্বাভাবিকভাবেই মণিশঙ্কর এই মন্তব্যের পর বিজেপি কংগ্রেস নেতাকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করেছে। গেরুয়া দলের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এ ধরনের মন্তব্য করে মণিশঙ্কর দেশের সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষকে অসম্মান করেছেন। তাই তাঁকে ক্ষমা চাইতে হবে।

- Advertisement -

Video News

Top News Headlines

Latest Posts

Don't Miss