বাংলাদেশের প্রথম হিন্দু মুখ্য বিচারপতির বিরুদ্ধে অর্থ পাচার মামলার রায়দান শীঘ্র

684
Ex chief justice of Bangladesh s k sinha

ঢাকা: শেখ হাসিনার সরকারের সঙ্গে সংঘাতের জেরে তীব্র বিতর্কের মাঝে আগেই বাংলাদেশ (Bangladesh) ত্যাগ করেছেন, দেশটির সুপ্রিম কোর্টের প্রাক্তন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা (S K Sinha)। তাঁর বিরুদ্ধে অর্থ পাচার (Money laundering)ও আত্মসাৎ মামলা চলছে। বাংলাদেশ সরকারের চোখে ‘পলাতক’ এস কে সিনহার বিরুদ্ধে সেই মামলার রায় বের হবে ৫ অক্টোবর।

s-k-sinha-hasina

এস কে সিনহা বাংলাদেশের প্রথম সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায় থেকে সুপ্রিম কোর্টের মুখ্য বিচারপতি হয়েছিলেন। এই নজির শেখ হাসিনার নেতৃত্বে চলা আওয়ামী লীগ সরকারের আমলেই হয়। এর পরেই বাংলাদেশ সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী অর্থাৎ “বিচারপতিদের অপসারণের ক্ষমতা সংসদকে ফিরিয়ে দেওয়ার বিধান” ঘিরে জাস্টিস সিনহার সঙ্গে সরকারের দ্বন্দ্ব তীব্র হয়। বিরোধীরা অভিযোগ তোলে সরকার বিচার বিভাগে হস্তক্ষেপ করছে। তীব্র বিতর্কের মাঝে খোলা চিঠি দিয়ে দেশ ত্যাগ করেন জাস্টিস সুরেন্দ্র কুমার সিনহা।

সুরেন্দ্র কুমার সিনহা দেশত্যাগ করতেই তাঁর বিরুদ্ধে একদা ফারমার্স ব্যাংক (বর্তমানে পদ্মা ব্যাংক) থেকে ৪ কোটি টাকা ঋণ নিয়ে তা আত্মসাৎ করার অভিযোগে মামলা দায়ের করে বাংলাদেশ দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। এই মামলায় আরও ১১ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে।

এস কে সিনহা তাঁর স্ত্রীকে নিয়ে অস্ট্রেলিয়া ও পরে কানাডা চলে যান। তিনি অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।